You are here
Home > জাতীয় > সদিচ্ছা থাকলেও কাজ করতে পারছি না : দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ

সদিচ্ছা থাকলেও কাজ করতে পারছি না : দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদ বলেছেন, দুর্নীতি প্রতিরোধে কাজ করতে আমাদের সদিচ্ছা আছে। কিন্তু সক্ষমতা নেই। এ জন্য সদিচ্ছা থাকলেও কাজ করতে পারছি না। কাজ করতে গেলে কিছু সমস্যায় পড়তে হচ্ছে আমাদের।

ঢাকার সেগুনবাগিচায় ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি) ও দুদকের মধ্যে এক সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে দুদক চেয়ারম্যান এ সব কথা বলেন।

দুদক চেয়ারম্যান বলেন, ‘বিদেশে কালো টাকা পাচার, ব্যবসার নামে অর্থপাচার, অবৈধ সম্পদ অর্জন অনুসন্ধান করবে দুদক। এসব বিষয়ে দুদক শক্তভাবে হস্তক্ষেপ করতে চায়। কিন্তু দক্ষ জনবলের অভাবে তা করতে পরছি না। দক্ষ জনবল না থাকলে এ রকম ১০টি প্রতিষ্ঠান দিয়েও দুর্নীতি দমন করা সম্ভব হবে না।’
তিনি বলেন, এবারের বাজেটে প্রভাবশালীরা কালো টাকা সঞ্চয়ের সুযোগ পাচ্ছেন।

টিআইবির নির্বাহীর পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান বলেন, ‘সমাজের প্রভাবশালী দুর্নীতিবাজরা রাজনৈতিক আশ্রয়-প্রশ্রয় পায়, এ কারণে তারা স্বাচ্ছন্দে দুর্নীতি করে পার পেয়ে যাচ্ছে।’

ব্রিফিংয়ে জানান হয়, দুদক এবং টিআইবির যৌথ সহযোগিতার আওতায় গবেষণা কার্যক্রম, অ্যাডভোকেসি কার্যক্রম, সক্ষমতা বৃদ্ধিমূলক কার্যক্রম, ব্যবস্থাপনা সংক্রান্ত কার্যক্রম রয়েছে। এই সমঝোতা স্মারকের অধীনে কার্যক্রম বাস্তবায়নে দুদক ও টিআইবি একজন করে ‘ফোকাল পয়েন্ট’ নির্ধারণ করবে।

এর আগে দুর্নীতি দমন কমিশন দুদকের মহাপরিচালক (প্রতিরোধ) শামসুল আরেফিন এবং ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ-টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ইফতেখারুজ্জামান সমঝোতা স্বারকে সই করেন।

দুর্নীতি প্রতিরোধ সংক্রান্ত কার্যক্রমকে আরও বেগবান ও গতিশীল করতে পারস্পরিক সহযোগিতার লক্ষ্যে দুদক ও টিআইবি ২০১৫ সালের ২৫ মে দুই বছর মেয়াদী একটি সমোঝতা স্মারক সই করে। পারস্পরিক এই সহযোগিতা ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ পর্যন্ত বাড়ানতে এ সমাঝোতা স্বাক্ষর করা হয়।

Similar Articles

Leave a Reply

Top